জাতীয়

দেশে করোনা মোকাবিলায় মাস্ক ও গ্লাভসের অভাবের মাঝেই বিদেশে রফতানি মোদি সরকারের, জল্পনা তুঙ্গে

করোনা মোকাবিলায় লড়াইয়ে যখন দেশের চিকিত্‍সক ও স্বাস্থ্যকর্মীরা মাস্ক, গ্লাভস ও পিপিই(সুরক্ষা পরিধান) পাচ্ছেন না, তখন সার্বিয়াতে এগুলি বিক্রি করছে মোদি সরকার। যা নিয়ে দেশের বিভিন্ন জায়গায় চিকিৎসক মহলে ক্ষোভ দেখা গিয়েছে। করোনা বিরুদ্ধে লড়াই জাতির উদ্যেশে ভাষণে প্রথমে ‘জনতা কার্ফু’ এবং তারপর ২১ দিনের লকডাউন ঘোষণা করেছেন ১৩০ কোটির ভোটে জেতা ভারতীয় প্রধানমন্ত্রী। এতেই দায়িত্ব সেরে ফেলেছেন ভাষণে মোদি সরকার। দেশের চিকিত্‍সক ও স্বাস্থ্যকর্মীরা কথা না-ভেবে বিদেশে মেডিকেল প্রোটেকটিভ ইক্যুইপমেন্ট বিক্রি করেছে ভারত। বুধবারই এই চাঞ্চল্যকর তথ্য সামনে এসেছে। প্রায় ৯০ টন চিকিৎসা সরঞ্জাম এবং সুরক্ষা কিট সার্বিয়াকে রফতানি করছে কেন্দ্র সরকার। ইউএনডিপি (জাতিসংঘের উন্নয়ন কর্মসূচি)-র সার্বিয়া শাখার একটি টুইটের মাধ্যমে বিষয়টি সামনে এসেছে। যার দ্বারা বোঝা যাচ্ছে, দেশের চিকিৎসকদের স্বাস্থ্য সুরক্ষা মূলক সরঞ্জাম না দিয়ে বিদেশে তা বিপুল পরিমাণে রফতানি করা হচ্ছে। যদিও এই বিষয়টি অস্বীকার করছে কেন্দ্রীয় ‌স্বাস্থ‍্য মন্ত্রক। গত ২৯ মার্চ ইউএনডিপি প্রকাশিত ওই টুইট-এ লেখা হয়েছে, “৯০ টন মেডিক্যাল প্রোটেকটিভ ইকুইপমেন্ট নিয়ে ২য় কার্গো বিমান বোয়িং ৭৪৭ আজ ভারত থেকে বেলগ্রেডে অবতরণ করেছে। এই মূল্যবান সামগ্রীগুলো সরবরাহ করা হয়েছে সার্বিয়া সরকারকে। এবং সমস্ত পরিবহন খরচ দিয়েছে ইইউ। সমগ্র পরিচালনা এবং দ্রুত সরবরাহের বিষয়টি তত্ত্বাবধান করেছে ইউএনডিপি সার্বিয়া।” এই বিষয়টি সামনে আসতেই তা নিয়ে সরব হয়েছে কংগ্রেস। কংগ্রেস নেতা মনীষ তিওয়ারির টুইট, “মাননীয় প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি, কী হচ্ছে এসব? ফ্রন্টলাইন ভারতীয় স্বাস্থ্যকর্মীরা যখন সুরক্ষা মূলক সরঞ্জামের জন্য লড়াই করছেন, তখন আমরা ৯০ টন চিকিৎসা সামগ্রী সার্বিয়াতে রফতানি করছি। এটা অপরাধ।”

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *